ঢাকা, বুধবার   ২২ মে ২০২৪ ||  জ্যৈষ্ঠ ৭ ১৪৩১

এস আলম গ্রুপের পাওয়ার প্ল্যান্ট থেকে ১০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ সরবরাহ শুরু

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ১৭:০০, ২৫ মে ২০২৩  

এস আলম গ্রুপের পাওয়ার প্ল্যান্ট থেকে ১০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ সরবরাহ শুরু

এস আলম গ্রুপের পাওয়ার প্ল্যান্ট থেকে ১০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ সরবরাহ শুরু

বৃহৎ শিল্পগোষ্ঠী এস আলম গ্রুপ ও চীনের সেপকো থ্রির মালিকাধীন এসএস পাওয়ার প্ল্যান্টের ১ নম্বর ইউনিটের বিদ্যুৎ জাতীয় গ্রিডে পরীক্ষামূলক সরবরাহ শুরু হয়েছে।

গতকাল বেলা ২টা থেকে চট্টগ্রামের বাঁশখালীতে স্থাপিত বিদ্যুৎকেন্দ্রটি ১ মেগাওয়াট দিয়ে সরবরাহ শুরু করে। বিকাল সাড়ে ৩টা নাগাদ সরবরাহ ১০০ মেগাওয়াটে উন্নীত করা হয়। এই কেন্দ্র থেকে রাতে পিক আওয়ারে সর্বোচ্চ ২০০ মেগওয়াট বিদ্যুৎ নেবে জাতীয় গ্রিড সালন কর্তৃপক্ষ তথা পাওয়ার গ্রিড কোম্পানি অব বাংলাদেশ-পিজিসিবি।

এসএস পাওয়ার প্ল্যান্টের উপ-প্রকল্প পরিচালক (ইলেকট্রিক্যাল) প্রকৌশলী মো. ফয়জুর রহমান জানান, বেলা ২টা থেকে পিজিসিবি জাতীয় গ্রিডে বিদ্যুৎ নেয়া শুরু করেছে। ১ মেগাওয়াট দিয়ে যাত্রা শুরু হলেও ধীরে ধীরে উৎপাদন ও সরবরাহ বাড়তে থাকে। রাতে পিক আওয়ারে সর্বোচ্চ ২০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ নেবে পিজিসিবি। যদিও ১ নম্বর ইউনিট থেকে জাতীয় গ্রিডে ৫০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ দিতে সক্ষম এসএস পাওয়ার প্ল্যান্ট কর্তৃপক্ষ।

সংশ্লিষ্টরা জানান, গত ১৪ জানুয়ারি বেলা ১টা ৫৬ মিনিটে বাঁশখালীর ১ হাজার ৩২০ মেগাওয়াট উৎপাদন ক্ষমতাসম্পন্ন এসএস পাওয়ার প্ল্যান্টটি জাতীয় গ্রিডের ৪০০ কেভি সঞ্চালন লাইনের সঙ্গে যুক্ত হয়। বঙ্গোপসাগরের কোলঘেঁষে বাঁশখালীর গন্ডামারা এলাকায় স্থাপিত বিদ্যুৎকেন্দ্রটি এস আলম গ্রুপ ও চীনের সেপকো থ্রির যৌথ মালিকানাধীন। এটি কয়লাভিত্তিক বিদ্যুৎ প্রকল্প হলেও সুপার ক্রিটিক্যাল প্রযুক্তির কারণে পরিবেশ দূষণের আশঙ্কা নেই। এই প্রযুক্তিতে কম কয়লা পুড়িয়ে বেশি বিদ্যুৎ উৎপাদন করা যাবে। বাংলাদেশের শতভাগ বিদ্যুতায়ন ও শিল্পায়নের ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করবে এ প্রকল্প।

সর্বশেষ
জনপ্রিয়