ঢাকা, শনিবার   ০৫ ডিসেম্বর ২০২০ ||  অগ্রাহায়ণ ২০ ১৪২৭

নেত্রকোনায় শুরু হয়েছে ধানকাটা ও মাড়াই

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ১২:৩৩, ২১ নভেম্বর ২০২০  

ছবি- সংগৃহীত

ছবি- সংগৃহীত

করোনাকালে এবার নবান্নের কোনও রকম উৎসব ছাড়াই নেত্রকোনা জেলার সর্বত্র শুরু হয়েছে ধানকাটা ও মাড়াই। কয়েক দফা বন্যার পানিতে চারা গাছ নষ্ট হওয়ায় গত বছরের তুলনায় এ বছর লক্ষ্যমাত্রার চেয়ে কম আবাদ হলেও কৃষি বিভাগ বলছে ফলন ভালো হয়েছে।

তবে মাঠপর্যায়ে ঘুরে দেখা গেছে উঁচু জমিগুলোতে ধান পেকেছে। অপরদিকে এখনো অর্ধেকের কাছাকাছি ধানগাছ কাঁচা রয়েছে। যে কারণে পর্যায়ক্রমে ধান পাকায় উঁচু জমির ধানগুলোই কর্তন চলছে।

জেলার সদর, দুর্গাপুরসহ বিভিন্ন উপজেলার উঁচু এলাকার জমিগুলোতে ধানকাটা ও মাড়াই শুরু হয়ে গেছে গত কয়েক দিন ধরেই। নারী-পুরুষ নির্বিশেষে পরিবারের সবাই মিলেই মাঠে নেমেছেন ফসল তুলতে।

অনেকে শ্রমিক মজুরি খরচ বাঁচাতে নিজেরাই মাঠে কাজ করছেন বলেও জানান ফসল তোলায় ব্যস্ত কিষান-কিষানি। তবে কৃষকরা এবার ক্ষতির মুখেও পড়বেন বলে জানিয়েছেন তাদের অনেকে। শুধু খাবারের আশায়ই তারা জমি আবাদ করেছেন এ বছর।

কিন্তু নেত্রকোনা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদফতরের উপপরিচালক কৃষিবিদ মো. হাবিবুর রহমান বলেছেন, ফলন ভালো হওয়ায় বন্যায় কিছুটা ক্ষতি হলেও ধানের লক্ষ্যমাত্রা এবারো ছাড়িয়ে যাবে বলে আশা করা যাচ্ছে।

তিনি বলেন এবার ১ লাখ ৩৪ হাজার হেক্টর জমিতে আবাদ হয়েছে। তার মধ্য কয়েক দফা বন্যায় ১০ হাজার ৯০০ হেক্টর জমির চারা নষ্ট হয়েছিল এ বছর। যে কারণে এই ক্ষতি পুষিয়ে নিতে এ ফসল তোলার পরপরই মৌসুমি রবি শস্য ফলাতে কৃষকদের আগ্রহী করে তুলতে মাঠে কাজ করছে কৃষি বিভাগ।

সারাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
সর্বশেষ
জনপ্রিয়