ঢাকা, মঙ্গলবার   ২১ সেপ্টেম্বর ২০২১ ||  আশ্বিন ৫ ১৪২৮

বাবার মতোই শুরু করেছেন তারেক!

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ১৫:২৮, ৬ জুলাই ২০২১  

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

রক্ত কথা বলে, কথাটি যে মিথ্যে নয়-তা আরেকবার প্রমাণ হলো বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের মাধ্যমে। তিনি তার বাবা জিয়াউর রহমানের মতো বৌ পেটানো শুরু করেছেন বলে একটি বিশ্বস্ত সূত্র মারফৎ জানা গেছে।

সূত্রটির তথ্যমতে, করোনাভাইরাসের এই সময়ে মানুষ যখন নিজের জীবন বাঁচাতে স্বাস্থ্যবিধি মেনে ঘরে থাকছেন, ঠিক তখনই স্বাস্থ্যবিধি ভঙ্গ করে জুয়ার আসরে দিনরাত বুঁদ হয়ে থাকছেন লন্ডনে পলাতক ফেরারি আসামি ও বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান। শুধু তাই নয়, জুয়ায় হেরে মদ্যপ অবস্থায় তিনি প্রায় প্রতিনিয়তই ফিরছেন বাসায়, করছেন চিৎকার-হৈচৈ। জবাবে স্ত্রী জোবায়দা রহমান কিছু বলতে গেলেই তার উপর চড়াও হচ্ছেন তারেক, তুলছেন গায়ে হাত। কখনও কখনও অধিক উত্তেজিত হয়ে তিনি কোমরের বেল্ট খুলেও করছেন বেদম প্রহার।

এমনটা তার বাবা স্বৈরশাসক জিয়াউর রহমানও করতেন বলে দাবি একটি বিশেষ মহলের। তাদের ভাষ্য, ছেলে তো বাবার মতোই হবে। এটাই স্বাভাবিক। তারেকও তেমন হয়েছেন। অল্পতেই হাত তোলেন স্ত্রীর গায়ে। যেমনটা তুলতেন জিয়াউর রহমান।

অপরদিকে, তারেকের দৈনন্দিন এমন কর্মে যারপরনাই বিরক্ত তার প্রতিবেশীরা। তারা বলছেন, প্রতিদিন মধ্যরাতে তাদের পারিবারিক কলহ, উচ্চস্বরে অশ্লীল ভাষায় গালমন্দ আর ভালো লাগে না। এ থেকে অবিলম্বে মুক্তি দরকার। নইলে তারা বাঙালি কমিউনিটিতে তারেকের বিরুদ্ধে অচিরেই বিচার দেবেন। যাতে তাকে শাস্তির আওতায় আনা হয়। কারণ, তার কারণে প্রতিবেশী ফ্ল্যাটের সন্তানরাও শিক্ষা নিচ্ছে, কিভাবে বৌ পেটাতে হয়, নারী নির্যাতন করতে হয়। তাই এমনটা আর চলতে দেওয়া যায় না।

রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা বলছেন, জিনগত দিক থেকে হলেও সন্তানরা বাবার মতো হয়। তারেক রহমানও তার ব্যতিক্রম নন। এ কারণে তিনি বাবার মতো অমানুষ হয়ে উঠেছেন। শুরু করেছেন তার মতো বৌ পেটানো। এখনই তাকে থামানো না গেলে, কে জানে হয়তো জোবায়দাকে তিনি মেরেই ফেলবেন। আর মেরেও যে ফেলবেন না, তার কী গ্যারান্টি? কারণ, তার শরীরে তো বইছে খুনি জিয়ার রক্ত।

সর্বশেষ
জনপ্রিয়